যানবাহন

আপনার গাড়ী বিক্রির জন্য খুঁটিনাটি বিষয়ের দিকে নজর দিন

পুরনো গাড়ী বিক্রির ওয়েবসাইটে খুব সহজেই পুরনো বা সেকেন্ড হ্যান্ড গাড়ী কিনতে পাওয়া যায় যেটি সম্ভাব্য ক্রেতা ও বিক্রেতার একটি মিলনমেলা এবং একই জায়গায় বিভিন্ন ধরণের গাড়ী পাওয়া যায়। বাংলাদেশের জনবহুল সাতটি জেলার সবগুলো থেকে গাড়ীর মালিকদের পোস্ট করা মানসম্পন্ন ব্র্যান্ড, যেমন টয়োটা, হোন্ডা, নিশান, এবং অন্যান্য ব্র্যান্ডের গাড়ী, bikroy.com-এ রয়েছে। এর ফলে গাড়ী বিক্রি করা পূর্বের যেকোনো সময়ের চাইতে এখন অনেক সহজ হয়েছে, কিন্তু তারপরও এসব কেনাবেচার ওয়েবসাইটে আপনার গাড়ী বিক্রির সম্ভাবনা বাড়াতে আপনার কিছু প্রস্তুতির প্রয়োজন রয়েছে।

আকর্ষণীয় মূল্য ধার্য করে একটি ভালো বিজ্ঞাপন তৈরি করুন

আলোচনার সুযোগ রেখে পুরনো গাড়ীর যথার্থ ও আকর্ষণীয় মূল্য নির্ধারণ করার পাশাপাশি, বিভিন্ন দিক থেকে এবং মূল দরজা ও হুডের ভেতরের কয়েকটি ছবি তুলে, যথার্থ ও বর্ণনামূলক শিরোনাম দিয়ে এবং মূল পেজে গুরুত্বপূর্ণ সকল তথ্য উল্লেখ করে বিজ্ঞাপন দেয়ার পরও গাড়ীটিকে বিক্রির প্রস্তুত করার বিষয়টি বাকি থেকে যায়।

আপনার গাড়ীর কাগজপত্র সংক্রান্ত সকল কাজ সেরে ফেলুন

প্রথমত, সকল কাগজপত্র (বিশেষ করে বৈধ মালিকানা) ঠিক থাকলে আপনার গাড়ীটি তাড়াতাড়ি বিক্রি হবে। গাড়ী সারানো ও তেল পরিবর্তনের পুরনো রশিদ্গুলো থাকলে তা ক্রেতাকে এই নিশ্চয়তা দেবে যে গাড়ীটি যত্নসহকারে ব্যবহার করা হয়েছে। বিশেষ করে, ওয়ারেন্টি রয়েছে এমন কোনো রশিদ থাকলে সেগুলো দিন। এটি আপনার গাড়ীর মান বাড়াবে এবং বিক্রির হার বাড়িয়ে দেবে।

আপনার গাড়ীর অবস্থা সম্পর্কে ভালো করে জানুন এবং যদি কোনো সমস্যা থাকে তা ঠিক করিয়ে নিন

কোন মেকানিককে আপনার গাড়ীটি দেখান অথবা গাড়ী সম্পর্কে ভালো জ্ঞান আছে এমন কাউকে দিয়ে ভালোভাবে পরীক্ষা করান। আপনি নিশ্চয়ই চান না যে গাড়ী বিক্রির ঠিক আগ মুহুর্তে ক্রেতার চোখে গাড়ীর কোনো ত্রুটি ধরা পড়ুক। পুরনো গাড়ীতে কিছু ত্রুটি বিচ্যুতি থাকাটাই স্বাভাবিক এবং তার জন্য কিছু মেরামতের কাজ করতে হতে পারে, কিন্তু হয় আপনাকে সেসব সমস্যা ঠিক করতে হবে বা ক্রেতাকে তা খুলে বলতে হবে। আপনাকে হিসেব করে দেখতে হবে যে মেকানিক্যাল বা বাইরের দিকের মেরামত করলে তাতে আপনার পোষাবে কিনা। আপনার কাছে মেরামতের অর্থ না থাকলে, আপনাকে গাড়ীর দাম কমিয়ে দিতে হবে। যদি সম্ভব হয় তবে ভাঙা মিরর ঠিক করুন, পুরনো টায়ার বদলান, ইঞ্জিনের অকেজো যন্ত্রাংশ পাল্টে নিন, গাড়ীর বাইরের দিকে টোল খাওয়া থাকলে তা ঠিক করুন এবং রঙ করান, এতে করে আপনি গাড়ীর দাম একটু বেশী পাবেন। গাড়ীটি যদি কেনার মতো হয় তবে তা বিক্রির আগে মেরামত করে আপনার পোষাবে। তবে, আপনার গাড়ীর মডেলটি যদি জনপ্রিয় না হয়, তবে আপনি নিশ্চয়ই মেরামতের জন্য এর পেছনে অর্থ খরচ করতে চাইবেন না। সেক্ষেত্রে, আপনার গাড়ীর সব সমস্যা ক্রেতাকে খুলে বলতে হবে।

বিজ্ঞাপনের জন্য ছবি তোলার আগে গাড়ীটি ভালোভাবে পরিষ্কার করে নিন

একটি পরিষ্কার ঝকঝকে গাড়ীর ছবি পোস্ট করুন এবং ক্রেতা যখন তা দেখতে আসবে তখন তা পরিষ্কার রাখুন। ভালোমতো ধুয়ে ওয়াক্সিং করলে তা ময়লা পরিষ্কার করে গাড়ীটিকে ঝকঝকে করে তুলবে। কোনো কঠিন দাগ থাকলে তা তুলে ফেলুন- কেননা সেগুলো ক্রেতার চোখে ক্ষতের মতো মনে হবে। হুডের নীচে চেক করুন এবং তেল ও গ্রিজ মুছে ফেলুন। অন্যান্য তরল ও তেল সরিয়ে ফেলুন। অতিরিক্ত বোনাস হিসেবে গ্যাসের ট্যাঙ্ক পূর্ণ করে দিন। গাড়ীর ভেতরটি পরিষ্কার করতে ভুলবেন না যেনো। ট্রাঙ্ক ও ভেতর থেকে সকল অপ্রয়োজনীয় জিনিসপত্র সরিয়ে ফেলুন। সামনের ও পেছনের উইন্ডশিল্ড এবং সকল ডোর উইন্ডো মুছে ফেলুন। স্টিয়ারিং হুইল, ড্যাশবোর্ড, গ্লাভ বক্স, রেডিও, সবকিছু ভালো করে পলিশ করুন। প্রয়োজন হলে গাড়ীর সিট এবং ফ্লোরে কয়েকবার ভ্যাকুয়াম ক্লিনার করবেন, যতক্ষন না সব ধুলো ময়লা দূর হয়। পেশাদারদের দিয়ে কাজ করাতে পারেন। তবে চেষ্টা করবেন কমপক্ষে গাড়ীটি পরিষ্কার করে যতটা সম্ভব নতুনের মতো করার। ক্রেতার কাছে গাড়ীটি আকর্ষণীয় করে তোলার জন্য পরিষ্কার ও দুর্গন্ধমুক্ত করতে আপনাকে কিছু ক্লিনিং প্রোডাক্ট কিনতে হবে। ইন্টারনেট বাজারে যেহেতু আপনারটিই একমাত্র গাড়ী নয় সেহেতু আপনাকে অন্যান্য গাড়ীর দাম এবং পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার সাথে প্রতিযোগিতা করতে হবে।

আপনার প্রস্তুতি অন্য কাউকে দিয়ে পরীক্ষা করান

আপনি যখন নিজে সন্তুষ্ট হবেন যে, গাড়ীটি ভালো অবস্থায় আছে, এর ভেতর ও বাইরের দিক পরিষ্কার, কোনো দুর্গন্ধ নেই, দেখতে ভালো লাগছে এবং কাগজপত্র সংক্রান্ত সকল কাজ হয়ে গেছে তখন অন্য কারও মতামত নিয়ে দেখুন। আপনার প্রতিবেশীকে জিজ্ঞেস করুন গাড়ীটি কেমন লাগছে। গাড়ী সম্পর্কে অভিজ্ঞ কোনো বন্ধুবান্ধব থাকলে তাঁর কাছে জানতে চান ছোট বা বড় আর কোন কাজ বাদ পড়েছে কিনা। পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা সম্পর্কে যার রুচি ভালো এমন কাউকে আপনার গাড়ী দেখান এবং তার উপর ভিত্তি করে নম্বর দিতে বলুন। তাঁকে ভেতরে ঢুকে গন্ধ শুঁকে বলতে বলুন সিগারেটের দুর্গন্ধ দুর হয়েছে কিনা। এভাবে একাধিকবার পরীক্ষা-নিরীক্ষা করলে বাজারে তোলার জন্য আপনার গাড়ীটির প্রস্তুতি নিশ্চিত হবে।

ভালো বিজ্ঞাপন তৈরি করুন

ক্রেতার জন্য গাড়ী প্রস্তুতির সবকিছু করা হয়ে গেলে, ডিজিটাল বা অন্য ক্যামেরা দিয়ে গাড়ীর বিভিন্ন দিক থেকে অনেকগুলো ছবি তুলুন। গাড়ীর দরজা খুলে এর ভেতরে সামনে ও পেছনের দিকের এবং এমনকি ট্র্যাঙ্কের ভেতরের ছবিও তুলুন। হুড খুলে ইঞ্জিনের ছবি তুলুন যাতে কারিগরি জ্ঞানসম্পন্ন ক্রেতা অনলাইনের মাধ্যমে কিছুটা হলেও আপনার গাড়ীর ইঞ্জিনের অবস্থা দেখতে পারেন।

পরিসমাপ্তি

অনলাইনে গাড়ী বিক্রির ক্ষেত্রে বিক্রির সম্ভাবনা বাড়াতে, অল্প সময়ে বিক্রি করতে এবং ভালো দাম পাওয়ার জন্য অনেক ধরনের প্রস্তুতির প্রয়োজন। যখন অনালাইন মার্কেটপ্লেস ছিল না তখনও এসব ব্যাপার ছিল এবং অনলাইন টুলটি বিক্রির সময় কমিয়ে এনেছে ও পছন্দমতো গাড়ী কেনার ক্ষেত্রে সহায়তা করছে। পুরনো গাড়ী বিক্রির ওয়েবসাইটে যদিও পুরনো গাড়ীগুলো এসব সুবিধা পাচ্ছে তবুও গাড়ী বিক্রির ক্ষেত্রে সাফল্য পেতে ভালোভাবে পরিষ্কার ও মেরামত করা জরুরী।

সাবস্ক্রাইব করুন

No spam guarantee.

আরও দেখুন

Arifin Hussain

Passionate online marketer and tech blogger. Currently working at Bikroy.com as Online Marketing Specialist.

অনুরূপ লেখা গুলো

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
Close
Close