চাকরি

বাংলাদেশে আইটি চাকরির বাজার

বর্তমানে বাংলাদেশে তথ্য প্রযুক্তির বাজারে কাজওে ক্ষেত্র অসীম যেখানে অভিজ্ঞতা ও শিক্ষার বিভিন্ন স্তরের ব্যক্তিদের জন্য পূর্ণ কর্মজীবনের সুযোগ হয়েছে। আধুনিক কালে, প্রযুক্তি আমাদের দৈনন্দিন জীবনের  একটি বিশাল অংশ দখল করে আছে। আপনার জন্য উপযুক্ত একটি আইটি পেশা চাইছেন তাহলে দ্রততম ক্রমবর্ধমান  এ শিল্পের মধ্যে কাজের নিরাপত্তা ও সুযোগ সুবিধা নিন।

এপ্লিকেশন এবং প্রোগ্রাম ডেভেলপারঃ

এ বিষয়ে  যথাযথ জ্ঞান শিক্ষা ও এপ্লিকেশন ডেভেলপমেন্ট প্রোগ্রামের অভিজ্ঞতা সম্পন্ন পুরুষ এবং মহিলাদের জন্য কাজের।আদর্শ প্রার্থী তাদের ক্ষমতা, স্মাটর্, সৃজনশীল, এবং নিশ্চিত পারত সাপেক্ষে কাজের চাপ নিতে সক্ষম। এধরনের যোগ্য কর্মী বাছাইয়ের জন্য সবচেয়ে ভালো উপায় একটি বিস্তারিত সিভি এবং প্রযুক্তিগত নান প্রশ্নের উত্তর তাদের কাঝ থেকে নেওয়া। জেনে নিন কিভাবে শিক্ষার্থীরা একজন প্রোগ্রামার হিসেবে ক্যারিয়ার গড়ে তুলতে পারেন

কম্পিউটার অপারেটরঃ

এই কাজের জন্য সংশ্লিষ্ঠ ব্যক্তিকে মাইক্রোসফট অফিস , অ্যাডোবি ফটোশপ, ইন্টারনেট ব্রাউজিং, অ্যাডোবি ইলাষ্ট্রেটর, নথি-পত্র স্ক্যান, ইমেইল রচনা এবং কম্পিউটারের অনান্য বিষয়ে ভালো জ্ঞান থাকতে হবে । সংশ্লিষ্ঠ ব্যক্তিকে এ বিষয়ে নিজ নিজ ক্ষেত্রে নূন্যতম তিন বছরের অভিজ্ঞাতা থাকতে হবে এবং এন্ট্রি লেভেলে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ক্ষেত্রে তা ভিন্ন হয়।

কনটেন্ট লেখকঃ

একজন আইটি  প্রার্থী কনটেন্ট লেখক হিসাবে একটি প্রতিষ্ঠাওে অফিসিয়াল কাজের জন্য ওয়েব সাইটের কন্টেন্ট বা বিষয়ব¯‘ও সম্পর্ক্যে ন্যূনতম অভিজ্ঞতা প্রয়োজন। টেকনিক্যাল বিষয়ের ক্ষেত্রে যতিচিহ্ন, ব্যাকরণ, এবং বিন্যাস লেখার একটা ভাল দক্ষতার প্রয়োজন । যে কোনো স্বত্রন্ত্র ও উচ্চ মানের কন্টেন্ট তৈরি করার ক্ষমতা সম্ভাব্য প্রার্থীদের অতিরিক্ত দক্ষতা হিসাবে যাচাই করেন প্রতিষ্ঠানের প্রার্থীরা।

কম্পিউটার বিক্রয় এবং মেরামতঃ

এই পদের কর্মীরা খুচরা বিক্রয়ের ক্ষেত্রে ক্রেতাদের সহযোগিতা করবে পাশাপাশি কম্পিউটার ও যন্ত্রাংশ বিক্রি করবে। একজন চাকুরী প্রার্থীকে কাস্টমার সার্ভিস এবং ট্রাবলসুটিং টেকনিক্যাল ইস্যুর উন্নয়নে আগ্রহী হতে হবে। কম্পিউটারগত সাধারণ অভিজ্ঞতা এবং খুচরা বিক্রয়ের যোগ্যতা এই পদে আবেদনের একমাত্র শর্ত হিসেবে বিবেচিত হবে।

ডাটা এন্ট্রিঃ

খুব দ্রুত এবং নির্ভুলভাবে টাইপ করতে পারে এমন পুরুষ মহিলা যে কেউ এ পদের জন্যে যোগ্য। অফিস ও কম্পিউটার অভিজ্ঞতা অর্জন করার এটাই যথাযথ পদ যার মাধ্যমে আইটি ক্ষেত্রে অধিক টেকনিক্যাল ও সৃজনশীল পদের জন্যে প্রয়োজনীয় জ্ঞান লাভ করা যাবে। চাকুরি সম্পন্ন করার প্রয়োজনীয় অধিকাংশ জ্ঞান এখানেই প্রদান করা হবে।

ফেইসবুক মার্কেটিং ঃ

ফেইসবুকে ৩ হাজারের অধিক বন্ধু আছে এমন পুরুষ মহিলা যে কেউ মার্কেটিং পদের জন্যে উপযুক্ত বলে গণ্য হবে। এটা তাদের জন্যে খুবই ভালো হবে যারা স্কুল থাকা অব¯’ায় চাকুরি খুঁজছেন। জনপ্রিয় ফেইসবুক প্রোপাইলের মাধ্যমে সোসাল মার্কেটিং পরিচালনা করতে কোন ধরনের পেশাগত যোগ্যতার প্রয়োজন হবে না।

সার্ভিস ইঞ্জিনিয়ারঃ

টেকনলজি সিস্টেম মেরামত অথবা সার্ভিসিং কাজ পরিপূর্ণ ভাবে সম্পন্ন করার জন্যে টাবলসুটিং যোগ্যতা প্রয়োজন। কর্মীদের উপর নির্ভরশীল একজন সার্ভিস ইঞ্জিনিয়ার অফিসের সিস্টেম এবং অন্য সাইট গুলোতে যেতে

আই টি এক্সসিকুটিভঃ

অনান্য ইঙ্গিনিয়ারের মত একজন আই টি এক্সসিকুটিভের দায়িত্ত হল অফিসের চলমান টেকনোলজিকাল সিস্টেমগুলো তত্তাবধান করা। প্রয়োজনে একদল বিষেশজ্ঞদের দারা প্রতিদিন কাজ ভাগ করে দিয়ে তা করা যেতে পারে। বৈদ্যুতিক নিরাপত্তায় লেখাপড়া, তথ্য-নিরাপত্তা, চালমান প্রযুক্তিগত প্রশিক্ষণ এবং ব্যাপক সমস্যা সমাধান শিক্ষা অবস্থানের একজন আই টি এক্সসিকুটিভপ্রারম্ভিক কাজ।

আই টি ট্রেনিং ইন্সট্রাক্টরঃ

একজন অভিজ্ঞ প্রগ্রামার যার বিশাল জ্ঞান আছে এবং ইচ্ছা আছে অনান্যদের ও একজন যোগ্য করে তুলতে চান ইন্সট্রাক্টর হিসাবে।সম্ভাব্য প্রশিক্ষকদের অবশ্যইয় প্রাসংগিক জ্ঞান থাকতে হবে এবং ছাত্রদের প্রশ্নের বিস্তারিত জবাব্ দিতে হবে সহজভাবে। লিনাক্স, সিসিএনআ এবং ওরাকল এর মত প্রোগ্রাম এর এক্ষত্রে বেসিক উদাহ্রন গুলো দেয়া যেতে পারে।

জুনিয়র গ্রাফিক্স ডিজাইনারঃ

কোনো কিছুর একেবারে খুটিনাটি দেখতে দরকার পরে ছবির সম্পকে ভাল জ্ঞান থাকা। জুনিয়র ডিজাইনার একা একা কাজ করে থাকেন অথবা কারো অধীনেও কাজ করে থাকেন।পেশাগত পড়াশুনার চেয়ে এখানে প্রয়োজন পরে ছবির রঙ ও এর খুটিনাটি বিষয়ের উপরে ভাল জ্ঞান এবং দক্ষতা।

বাজারজাত করনঃ

মাকেটিং এর কাজে সব থেকে ভাল দরকার পরে যোগাযোগের উপর দক্ষতা ও এর সাথে বিভিন্ন মানুষ এবং প্রতিষ্ঠানের সাথে লিঙ্ক থাকা, মিডিয়া ম্যানেজমেন্ট, ইমেইল-যোগাযোগ, সিস্টেম ম্যানেজমেন্ট,ব্লগিং ও অন্যান্য আয় জাতীয় বিষয়ে জ্ঞান থাকা। এ ধরনের ক্যারিয়ারে পেষনা, বিক্রয় দক্ষতা এবং ডেডলাইন সম্পরকে সজাগ হওয়া।পুরব অভিজ্ঞতা এখানে তেমন দরকার নেই তবে কম্পিউটারের চালনার উপর ভাল ন থাকতে হবে। আরও দেখে নিন শিক্ষার্থীদের জন্য টিপস : কিভাবে ব্যবসায় ক্যারিয়ার গড়ে তুলবেন?

পি এইহ পি প্রোগ্রামারঃ

এইচটি এম এল, পিএইচপি, জাভাস্ক্রিপ্ট, মাইএসকিউএল, ছঁবৎু, পড়ফবরমহরঃবৎ, সিএসএস, এবং  সম্পুরন ওয়েব সাইট তৈরির প্রযুক্তিগত দক্ষতা এবং জ্ঞান একটি পিএইচপি প্রোগ্রামার হিসেবে চাকরির মূল চাবিকাঠি।  সবচেয়ে উপযুক্ত প্রার্থী পুরবে অন্তত এক বছরের কাজের একটি পোর্টফোলিও সঙ্গে উন্নয়নশীল ওয়েব প্রাসঙ্গিক অভিজ্ঞতা সবচেয়ে উপযুক্ত প্রার্থী হিসাবে ধরা হয়।

বিক্রয় সফটওয়ার অপারেটরঃ

একটি সংগঠিত পেশাগত ও একটি কম্পিউটার সিস্টেম অপারেটিং সাধারণ জ্ঞানের সাথে একটি সংগঠিত পেশাদার বিক্রয় সফ্টওয়্যার চালান যায়। পরিচালনাকারিরা সাভাবিক ভাবে সংক্ষিপ্ত তত্ত্বাবধানে অন্যের দারা চালিত হয়ে থাকেন যেখানে বিক্রয় চালানে সমাপ্তির গ্রাহকের আদেশ, পণ্য এন্ট্রি। একটি কম্পিউটার অপারেট করার ক্ষমতা একজন স্নাতক কারীর জন্য তেমন কষ্টকর হবে না যেখানে পুরব অভিজ্ঞতার দরকার নেই।

এস ই ও/ লিঙ্ক বিল্ডিং এক্সপাটঃ

অনলাইনে ব্যবসা সফল করতে হলে প্রয়োজনীয় ও উচ্চ-কন্টেন্ট লিঙ্ক এর মাধ্যমে সহজেই উপ্সথাপন করা যায়। এক জন চোউকস প্রাথীর এ বিষয়ে ভাল জ্ঞান এবং নিয়মকানুন জানা থাকলে ভাল হয়। পেশাগত পড়াশুনার চেয়ে এখানে প্রয়োজন পরে হোয়াইট হাট এস ই ও নিয়ম সম্পরকে ভাল জ্ঞান থাকা।
Bikroy.com/Jobs – এ আছে এই সব পেশার হাজারো চাকরির বিজ্ঞাপন সেখান থেকে এখনই আপনার কাঙ্ক্ষিত চাকরিতে আবেদন করুন
সাবস্ক্রাইব করুন

No spam guarantee.

আরও দেখুন

Arifin Hussain

Passionate online marketer and tech blogger. Currently working at Bikroy.com as Online Marketing Specialist.

অনুরূপ লেখা গুলো

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button
Close
Close