পোষা প্রাণী ও জীবজন্তু

বাংলাদেশের গবাদি পশুর মার্কেট ২০২১ | ইনফোগ্রাফিক

দেশে ডিজিটাল প্রযুক্তির অগ্রগতির কল্যাণে অনলাইনে কেনাবেচার প্রবণতা বেড়ে গেছে বহুলাংশে। দ্রুত চলমান বর্তমান বিশ্ব আর চলমান শাটডাউন পরিস্থিতির কারণে স্বশরীরে পশুর হাটে উপস্থিত হওয়াটা স্বাস্থ্য ঝুঁকির কারণ হতে পারে। 

একারণেই গত কয়েক বছরের মতো এবারও ঈদ-উল-আযহাকে কেন্দ্র করে বাংলাদেশে গবাদি পশুর কেনাবেচার জন্য অনলাইন হাটগুলো নিজেদের পসরা সাজিয়েছে। Bikroy.com-বাংলাদেশে প্রথমবারের মতো অনলাইনে কোরবানির পশু কেনাবেচার এই সুযোগ এনেছিলো। পরবর্তী সময়ে সরকারি এবং বেসরকারি উদ্যোগে অনেক প্রতিষ্ঠানই অনলাইনে পশু কেনাবেচার সাথে নিজেদের নাম জড়িয়েছে। 

আজকের লেখায় আমরা Bikroy-থেকে প্রাপ্ত ২০২১ সালের ব্যবহারকারী ডাটার ভিত্তিতে বাংলাদেশের গবাদি পশুর মার্কেটের ট্রেন্ডগুলো বিশ্লেষণ করে দেখবো এবং সেগুলোর কিছু দিক নিয়ে পর্যালোচনা করবো। 

কোন শহরগুলো থেকে বাংলাদেশে সবচেয়ে বেশি গবাদি পশু বিক্রির বিজ্ঞাপন পোস্ট করা হয়?

লোকেশনের ভিত্তিতে গবাদি পশুর বিজ্ঞাপন

ইনফোগ্রাফিকের তথ্যানুযায়ী আমরা দেখতে পাই যে, দেশের বড় শহরগুলো থেকে বিজ্ঞাপন দেওয়ার প্রবণতা অনেক বেশি। দ্রুত নগরায়ন এবং জনসংখ্যা বৃদ্ধির প্রবণতা সামনের দিনে এই সংখ্যাকে আরও বাড়িয়ে নিয়ে যাবে বলে আমরা মনে করছি। 

ইনফোগ্রাফিক অনুযায়ী,  রাজধানী ঢাকা থেকে সর্বাধিক গরু এবং ছাগলের বিজ্ঞাপন পোস্ট করা হয়েছে। এই এলাকা থেকে পোস্ট করা বিজ্ঞাপনের হার প্রায় ২৭%। ১৯% বিজ্ঞাপন নিয়ে এই সারির দ্বিতীয় অবস্থানে আছে রাজশাহী। ১৬% নিয়ে খুলনা তৃতীয় এবং ১৩% নিয়ে সিলেট চতুর্থ অবস্থানে রয়েছে। এর পরের অবস্থানে আছে চট্টগ্রাম ১২%, রংপুর ৭%, ময়মনসিংহ , এবং বরিশাল উভয়ে ৩%।      

গরু কেনার পেছনে ব্যয় কেমন হচ্ছে?

মূল্যের ভিত্তিতে গবাদি পশুর বিজ্ঞাপন

বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় মার্কেটপ্লেস হওয়ার কারণে Bikroy.com-এ নিয়মিত প্রচুর গবাদি পশু বিক্রি করার বিজ্ঞাপন পোস্ট হয়ে থাকে। যেখান থেকে সহজেই বিভিন্ন দামের গবাদি পশু সাধ এবং সাধ্যের মধ্যেই কেনা সম্ভব। 

পরিসংখ্যান অনুযায়ী Bikroy এ পোস্ট করা প্রায় ৪৬% গবাদি পশুর দামই ১ থেকে ৫ লক্ষ টাকার মধ্যে। Bikroy-এ পোস্ট হওয়া বিজ্ঞাপনগুলোর মধ্যে বেশিরভাগই এই মূল্যমানের মধ্যে থাকার অন্যতম কারণ হচ্ছে, এখানে বিভিন্ন খামার মালিক ছাড়াও অনেক গৃহস্থ তাদের গবাদি পশু বিক্রির বিজ্ঞাপন দিয়ে থাকেন।

প্রায় ২৬% বিজ্ঞাপন রয়েছে ৫০,০০০ টাকার নিচে। অন্যদিকে, ৫০ হাজার থেকে ১ লক্ষ টাকার মধ্যেও বিপুল সংখ্যক গবাদি পশুর বিজ্ঞাপন পোস্ট করা হয়, যা মোট বিজ্ঞাপনের ২২%। এছাড়াও ৫ লক্ষ থেকে ১০ লক্ষ টাকার মধ্যেও ২% গবাদি পশুর বিজ্ঞাপন রয়েছে।  

পোস্টকৃত গবাদি পশু বিক্রির বিজ্ঞাপন বনাম বিক্রির হার

বিজ্ঞাপন ও বিক্রয় কৃত গবাদিপশুর সংখ্যা

বিগত ৫ বছরের পরিসংখ্যান অনুযায়ী Bikroy-এ গরু এবং ছাগলের বিজ্ঞাপন সংখ্যা প্রতিবছরই বাড়ছে। 

২০১৭ সালে শুধুমাত্র কোরবানির সময় পোস্ট হওয়া গবাদি পশুর সংখ্যা ছিলো ৫,৪২০ টি যা থেকে বিক্রি হয়েছিলো ১,৫৪৪ টি পশু। ২০১৮ সালে কোরবানির সময় পোস্ট করা হয়েছিলো ৭,২৪৬ টি বিজ্ঞাপন এবং বিক্রি হয়েছিলো ২,২৯৩ টি পশু। ২০১৯ সালে ৯,৩৩১ টি বিজ্ঞাপনের মধ্যে বিক্রি হয়েছিলো ২,৮৮৯ টি পশু। 

শাটডাউন এবং করোনা পরিস্থিতির জন্য ২০২০ সালে বাজার কিছুটা নিম্নমুখী ছিলো যেখানে ৮,০৭০ বিজ্ঞাপন থেকে বিক্রি হয়েছে ২,০৮৫ টি পশু। অন্যদিকে ২০২১ সালে এখন পর্যন্ত পাওয়া তথ্যানুযায়ী বিজ্ঞাপন পোস্ট করা হয়েছে ৮,১৪৭ টি এবং যার মধ্যে, প্রায় ১,৩২০ টি পশু ইতিমধ্যে আমাদের তথ্য অনুসারে বুকিং দেওয়া আছে। প্রবণতা অনুসারে এখন পর্যন্ত বিক্রির সংখ্যা প্রায় দ্বিগুণ। তবে কোরবানির মৌসুমের শেষে বিক্রি হওয়া প্রকৃত গরুর সংখ্যা আরও বেশি হতে পারে।

কেনার ক্ষেত্রে কোন ধরণের গবাদি পশু এগিয়ে?

পশুর ধরণ অনুযায়ী বিজ্ঞাপন

আমাদের দেশের প্রেক্ষাপটে গরুর মাংসকে জনপ্রিয়, সুস্বাদু, এবং তুলনামূলক সস্তা হিসেবে এগিয়ে রাখা হয়। তারই একটি ছাপ আমরা দেখতে পাই Bikroy-এর বিজ্ঞাপনে। 

Bikroy এ গরুর বিজ্ঞাপন ছাগলের বিজ্ঞাপনের প্রায় তিনগুণ। সাম্প্রতিক ডাটা অনুযায়ী, Birkoy-এ সর্বমোট গবাদি পশুর মধ্যে গরুর বিজ্ঞাপন আছে ৭৩% এবং ছাগলের বিজ্ঞাপন আছে ২৭%। এবং এর সংখ্যা দিন দিন বাড়ছে।

শেষকথা

বর্তমান অতিমারির কারণে অনলাইন হাটের প্রয়োজনীয়তা এবং জনপ্রিয়তা উভয়ই বাড়ছে। তাই অনলাইন থেকে অথবা স্বশরীরে হাটে গিয়ে, যেখান থেকেই গবাদি পশু কেনাকাটা করুন না কেন, যথাসম্ভব স্বাস্থ্যবিধি মেনে সাবধান থাকার চেষ্টা করতে হবে এবং গবাদি পশু কেনার পূর্বে যা যা জেনে রাখা উচিত সে সম্পর্কে ধারণা রাখতে হবে। 

আমাদের পক্ষ থেকে আপনাকে এবং আপনার পরিবারে সকলকে জানাই পবিত্র ঈদ-উল-আযহার অগ্রিম শুভেচ্ছা!

Facebook Comments
সাবস্ক্রাইব করুন

No spam guarantee.

আরও দেখুন

অনুরূপ লেখা গুলো

Back to top button
Close
Close