নতুন প্রজন্মের এন্ড্রয়েড ওয়্যার কল্পনাকেও ছাড়িয়ে যাবে! ⌚📱

স্মার্টওয়াচ ফ্যানরা ২০১৬ সালের শুরু থেকে এনড্রইড ওয়্যার ২.০-এর আপডেটের জন্য অপেক্ষা করছেন। এবং দীর্ঘদিন অপেক্ষার পর ব্র্যান্ড নিউ এলজি ওয়াচ স্টাইল এবং ওয়াচ স্পোর্ট নামের একটি নতুন আপডেট এসেছে। শেষ জেনারেশনের এন্ড্রয়েড ওয়্যার স্মার্টঅয়াচগুলো আপডেট পাবে আসন্ন ফেব্রুয়ারীর কোন একটি সময়ে। কিন্তু দুঃখজনকভাবে প্রথম জেনারেশনের এন্ড্রইড ওয়্যার ডিভাইসগুলো কোন আপডেট পাবে না।

`sport

প্রথমেই নতুন হার্ডওয়্যার নিয়ে আলোচনা করা যাক। দুটো এলজি ওয়াচ স্পোর্ট এবং স্টাইলের একটি ঘূর্ণায়মান ক্রাওন রয়েছে যা দিয়ে ইউআই অ্যাপেল ওয়াচে নেভিগেট করা যায়। এটি স্যামসাং গিয়ার ওয়াচের ঘূর্ণায়মান বেজেলের মত এতটা স্বজ্ঞামূলক নয়। কিন্তু তারপরও বারবার স্ক্রীন সোয়াইপ করার চেয়ে এর ব্যবহার অনেক সুবিধাজনক। পুরনো ঘড়িগুলো এই ঘূর্ণায়মান ক্রাওনগুলো ছাড়া আগের মতই কাজ করবে তবে নতুন ঘড়িগুলোর ব্যবহার হবে আরও স্বাচ্ছন্দ্যময় যদি ব্যবহারকারীরা ক্রাওনের সঠিক ব্যবহার করতে পারেন।

style

আপডেটটি নিয়ে আসছে বেশ কিছু নতুন পারফরম্যান্স ফিচার এবং উন্নততর ইউআই। সহজ নেভিগেশন, সুইচ ওয়াচ ফেসেস অথবা অ্যাপ সিলেকশনের সুবিধা সম্বলিত নতুন ইউআই হবে অনেক সহজ। সবচেয়ে বড় পরিবর্তনটি হল স্মার্টফোনের সাথে পেয়ার করা ছাড়াই স্মার্টওয়াচ থেকে সরাসরি অ্যাপ ডাউনলোড করার সুবিধা। স্মার্টওয়াচের ছোট্ট স্ক্রীনে অ্যাপ খোঁজা অনেক ক্লান্তিকর তবে সৌভাগ্যের বিষয় এটাই যে আপনি সরাসরি আপনার স্মার্টওয়াচেই গুগল প্লে স্টোরের ওয়েবপেইজ থেকে অ্যাপ ডাউনলোড করতে পারছেন।

apps

আইফোন ব্যবহারকারীদের জন্য সবচেয়ে বড় সুবিধাটি হল ওয়াচে থার্ডপার্টি অ্যাপ ইন্সটল করা, যা পূর্বের আইওএসে করা সম্ভব ছিল না, এবং এটি অ্যাপেলের বিশ্বস্ত ব্যবহারকারীদের জন্য অনেক সুবিধাজনক। নতুন আপডেট আপনি কোন অ্যাপলিকেশনগুলো ইন্সটল করবেন সেগুলো বেছে নিতে আপনাকে সাহায্য করবে। পূর্বে আপনার ফোনের যে কোন অ্যাপ এন্ড্রয়েড ওয়্যার কম্প্যানিয়ন অ্যাপের মাধ্যমে আপনা আপনি ইন্সটল হয়ে যেত। এলজি ঘড়িগুলো গুগল অ্যাসিস্ট্যান্ট ইন্সটল করা অবস্থায় আসে যা এন্ড্রয়েড ২.০ সাপোর্টেড ডিভাইসগুলোর স্ট্যানডার্ড ফিচার হিসেবে আসে।

assistant

গুগল স্মার্টওয়াচগুলো আরও সুবিধাজনকভাবে তৈরি করার জন্য চেষ্টা করছে এবং এর প্রমাণ পাওয়া যায় এলজি ওয়াচ স্পোর্টের এলটিই এনটেনা, জিপিএস এবং এনএফসি-এর সংযোজনের মাধ্যমে। এলটিই নটিফিকেশন, কল, ম্যাসেজ ইত্যাদি আপনার ওয়াচে গ্রহণ করবে যদিও আপনি আপনার ফোন থেকে অনেক দূরে থাকেন। জিপিএস ফিটনেস উদ্যমীদের জন্য হবে বিশেষ আকর্ষণ কেননা এর মাধ্যমে দৌড়ের সঠিক ট্র্যাক রেকর্ড রাখা সম্ভব। এনএফসি একটি বিশেষ ডিল কেননা এর সাহায্যে এন্ড্রয়েড-পে-এর মাধ্যমে মোবাইল পেমেন্টগুলো করা সম্ভব হবে।

os compatibility

যদিও এই উন্নতকরণগুলো অসাধারণ, কিন্তু তারপরও আমার মতে গুগলের কাছ থেকে এ ধরণের উন্নত সংস্করণ পাওয়াটা একটু দেরিই হয়েছে। কেননা আপডেট আসতে বেশ খানিকটা সময় লেগে গেছে, বেশিরভাগ উৎপাদনকারীরাই প্রায় অনেক দিন ধরে নতুন স্মার্টওয়াচ বাজারে আনা থেকে বিরত ছিল। এর কারণে বিক্রিও হয়েছে কম এবং খুব একটা লাভও অর্জন করা সম্ভব হয়নি। প্রায় তিন বছর পর এন্ড্রইড ওয়্যার বাজারে আসলো, একই প্রশ্ন আবারও মাথায় আসছে। স্মার্টওয়াচকে স্মার্টফোনের একটি বিশেষ এক্সেসরি হিসেবে ধরা হয়। গুগল এই ডিভাইসগুলোকে স্বীয় অর্থে অর্থবহ করা এবং স্মার্টফোনের এক্সেসরি হিসেবে না ধরে একটি স্বতন্ত্র ডিভাইস হিসেবে স্বীকৃতিলাভের প্রচেষ্টা চালাচ্ছে। কিন্তু এখন পর্যন্ত এই আকর্ষণীয় গ্যাজেটগুলোর জন্য কোন সেলিং পয়েন্ট তৈরি হয়নি।

Comments

comments